শিরোনাম :
স্বপ্নে নয়, বাস্তবেই সোনায় মোড়ানো হোটেল শিক্ষার্থীদের ফ্রি ইন্টারনেট ও ঋণ দেওয়ার প্রস্তাব পিছু হটেছে চীনা সেনা, প্রমাণ মিলল উপগ্রহ চিত্রে করোনায় আক্রান্ত সংগীতশিল্পী সেলিম চৌধুরী ৮০ শতাংশ করোনা রোগীর উপসর্গ নেই: ব্রিটিশ জরিপ বনপাড়া শহর শাখার বঙ্গবন্ধু ছাত্রপরিষদ পক্ষ থেকে বৃক্ষ রোপন কর্মসুচী আল-জাজিরায় সাক্ষাতকার দেওয়া বাংলাদেশি যুবক রাহয়ান এর খুঁজে মালয়েশিয়া পুলিশ রায়পুর নবাগত ওসির সাথে সাংবাদিক ইউনিয়নের মতবিনিময় পাটগ্রাম উপজেলায় সাংবাদিক নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটি ও সাংবাদিক ঐক্য পরিষদ কমিটি গঠন ঠাকুরগাঁওয়ে সীমান্তে এক বাংলাদেশির মরদেহ উদ্ধার
১০০ কবিতা নিয়ে ‘শত ঝর্নার ধ্বনি’

১০০ কবিতা নিয়ে ‘শত ঝর্নার ধ্বনি’

আলোকিত ডেস্কঃ শিল্প আর শিল্পী যেখানে মিলেমিশে এক হয়ে যায়, সেখানেই সৃষ্টির সার্থকতা। বাচিক শিল্পী মৃন্ময় মিজান এর আবৃত্তি পরিবেশনের প্রতিটি উদ্ভাবন তেমনই সৃষ্টির সার্থকনামা। দেশে প্রথমবারের মতো টানা ১০০টি কবিতার একক আবৃত্তি নিয়ে আসছেন আবৃত্তি একাডেমির পরিচালক মৃন্ময় মিজান। বঙ্গবন্ধু জন্ম শতবর্ষ উপলক্ষেই এ আয়োজনটি হাতে নেয়া হয়। অনুষ্ঠানটির নাম দেয়া হয়েছে ‘শত ঝর্ণার ধ্বনি’।

শুক্রবার (১২ জুন) রাত ৯টায় আবৃত্তি একাডেমির নিজস্ব ফেসবুক পেজ (https://www.facebook.com/abrittiacademy.org/) থেকে লাইভ করা হবে এ আয়োজনটি। দ্বিতীয় পর্ব অনুষ্ঠিত হবে আগামী ১৯ জুন। আবৃত্তি একাডেমির নিজস্ব ইউটিউব চ্যানেল থেকেও অনুষ্ঠানটি লাইভ করা হবে। শ্রোতারা মন্ত্রমুগ্ধের মতো তার কণ্ঠে উচ্চারিত প্রতিটি শব্দের মাঝে নিজেকে আবিষ্কার করবে নতুন ভাবে।

১০০টি কবিতাকে চার পর্বে ভাগ করে মোট আট দিনে আবৃত্তি করবেন আবৃত্তিশিল্পী মৃন্ময় মিজান। প্রথম পর্বের নাম- জল ঘুঙুরের শব্দ। দ্বিতীয় পর্ব- বাংলাদেশ: মৃত্যুহীন অভিযাত্রা। তৃতীয় পর্ব- অরণ্য পিপাসা। চতুর্থ পর্ব- নক্ষত্র ছুঁয়েছে আকাশ। এ বিষয়ে মৃন্ময় মিজান বলেন, বঙ্গবন্ধুর জন্ম শতবর্ষ নিয়ে আমাদের অনেক পরিকল্পনাই আলোর মুখ দেখছে না করোনার কারণে। সারা পৃথিবীর মানুষ এখন ব্যস্ত মানবজাতিকে রক্ষার মহান সংগ্রামে। এমন দুর্যোগের দিনে বঙ্গবন্ধুর জন্ম শতবর্ষ উদযাপনকে পাশে রেখে আমরাও যথাসাধ্য সেই সংগ্রামে শামিল হতে চেষ্টা করছি। আবৃত্তির মাধ্যমে মানুষকে বেঁচে থাকার প্রেরণা যোগানো, করোনা ঝুঁকি নিয়ে অফিস করে যাওয়া, নিত্যদিনকার সাংসারিক খুঁটিনাটি কাজ করা- এভাবেই চলছে আমার করোনাকাল। তিনি বলেন, আবৃত্তির মানুষ হিসেবে, আবৃত্তি একাডেমির পরিচালক হিসেবে আমি এবং আমরা আমাদের সংগঠনের মাধ্যমে মানুষকে উজ্জীবিত রাখার চেষ্টা করে যাচ্ছি। ইতোমধ্যে আমরা রবীন্দ্র এবং নজরুলের জন্মজয়ন্তীতে ফেসবুকে লাইভ প্রোগ্রাম করেছি। আমাদের অনেক শ্রদ্ধেয়জনও রবীন্দ্র-নজরুল জয়ন্তীতে অনুষ্ঠান করেছেন। আমরা তাদের কবিতা এবং গানে বেঁচে থাকার প্রেরণা পাই, সংগ্রামের প্রেরণা পাই। করোনার এই দুর্যোগের দিনে যা আমাদের মনোবল আরও বাড়িয়ে দেয়।

মৃন্ময় মিজান বলেন, বঙ্গবন্ধু আমাদের প্রেরণার বাতিঘর। আমাদের সব সংগ্রামে তিনি এক অবিনাশী উজ্জীবনী শক্তি। তাকে নিয়ে লেখা গান কবিতা তো বটেই তাকে স্মরণে রেখে যে কোনো কাজই আমাদের মনোবল বাড়িয়ে দেয়। এ বিষয়টি মাথায় রেখেই আমি ফেসবুক লাইভে, এই করোনাকালীন সময়েই, একশত কবিতা আবৃত্তি করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। বঙ্গবন্ধুকে নিবেদিত কবিতা এখানে খুবই কম। তবে প্রায় সব কবিতাই মানুষকে নিবেদিত। মানুষের প্রেম, সংগ্রাম এবং প্রকৃতিকে নিবেদিত। এ বিষয়ে আবৃত্তি একাডেমির সমন্বয়ক আহম্মেদ শুভ জানান, বঙ্গবন্ধুর শতবর্ষ উদযাপন উপলক্ষে আবৃত্তি একাডেমির পক্ষ থেকে একাডেমির পরিচালক মৃন্ময় মিজানের ১০০টি কবিতা ‘শত ঝর্ণার ধ্বনি’। সিদ্ধান্ত ছিল অনুষ্ঠানটি রাজধানীর শওকত ওসমান স্মৃতি মিলনায়তনে আয়োজন করবো আমরা। করোনা পরিস্থিতির কারণে তা বাস্তবায়ন করা সম্ভব হচ্ছে না।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




কপিরাইট © ডেইলি আলোকিত সকাল - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত